IQNA

হিজবুল্লাহ মহাসচিব;
15:49 - February 07, 2019
সংবাদ: 2607889
আন্তর্জাতিক ডেস্ক: লেবাননের ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হিজবুল্লাহর মহাসচিব সাইয়্যেদ হাসান নাসরুল্লাহ বলেছেন, স্বাধীনভাবে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে এমন গুটি কয়েক দেশের একটি হচ্ছে ইসলামি ইরান। লেবাননের রাজধানী বৈরুতে ইরানের ইসলামি বিপ্লব বার্ষিকীর অনুষ্ঠানে ভিডিও লিঙ্কের মাধ্যমে সরাসরি সম্প্রচারিত বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন।

বার্তা সংস্থা ইকনা সাইয়্যেদ নাসরুল্লাহ বলেন, ইরান হচ্ছে মধ্যপ্রাচ্যের সবচেয়ে প্রভাবশালী দেশ। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রতিবেদনেও স্বীকার কারা হয়েছে ইরান হচ্ছে বিশ্বের ১৩তম প্রভাবশালী দেশ। কোনো কোনো সংস্থা বলছে প্রভাবের দিক থেকে ইরান নবম অবস্থানে রয়েছে। 

হিজবুল্লাহ মহাসচিব এ সময় বিপ্লব পরবর্তী ইরানের সাফল্য তুলে ধরার পাশাপাশি বিপ্লবের আগের পরিস্থিতির সঙ্গে বর্তমান পরিস্থিতির তুলনা করেন। হাসান নাসরুল্লাহ বলেন, ইরানের ইসলামি বিপ্লবের একটি বৈশিষ্ট হচ্ছে জনগণের দৃঢ় অবস্থান। 

তিনি বলেন: ইরানী সরকার আজ একটি স্বাধীন ও জাতীয় সরকার। ইরানী সরকার “না পূবাঞ্চলীয় ও না পশ্চিমা” সরকার।

ইরানের বিরুদ্ধে আমেরিকা ও তার মিত্রদের শত্রুতা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ইরানের স্বাধীনচেতা নীতি এবং ফিলিস্তিনি তথা মজলুমদের প্রতি সমর্থনের কারণে তারা শত্রুতা করছে ও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করছে। 

সাইয়্যেদ হাসান নাসরুল্লাহ আরও বলেছেন, বর্তমানে যে প্রতিরোধ জোট গড়ে উঠেছে তা মধ্যপ্রাচ্যের সবচেয়ে শক্তিশালী জোট। ইরানের বিরুদ্ধে যদি কোনো যুদ্ধ শুরু করা হয় সে যুদ্ধে ইরান একা থাকবে না। তবে অনেক দিন আগেই ইরানের বিরুদ্ধে মার্কিন ও ইসরাইলি হামলার আশঙ্কা কেটে গেছে বলে তিনি জানান। 

ইরানের বিরুদ্ধে শত্রুতা থেকে সরে আসতে আরব দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, আরব দেশগুলোর জানা উচিত ইরান তাদের কাছে ইসলামি ঐক্য ছাড়া আর কিছুই চায় না। তিনি ইরানের সঙ্গে বন্ধুত্ব গড়ে তুলতে সব আবর দেশের প্রতি আহ্বান জানান। নাসরুল্লাহ বলেন, ইসলামি ইরান প্রথম থেকেই বন্ধুত্বের হাত বাড়িয়ে রেখেছে। iqna

 

নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য: