IQNA

17:41 - March 15, 2019
সংবাদ: 2608133
আন্তর্জাতিক ডেস্ক: নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে দুইটি মসজিদে জুমার নামাজের সময় বন্দুকধারীদের গুলিতে তিন বাংলাদেশিসহ ৪৯ জন নিহত ও ৪৮ জন আহত হয়েছেন। ‘নজিরবিহীন’ এ সন্ত্রাসী হামলাটিকে ‘পরিকল্পিত’ হিসেবে অভিহিত করেন প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডের্ন।

বার্তা সংস্থা ইকনা: আজ (শুক্রবার) স্থানীয় সময় বেলা দেড়টার দিকে ক্রাইস্টচার্চের আল নূর মসজিদে জুমার নামাজ আদায়রত মুসলিমদের ওপর হামলা চালায় এক বন্দুকধারী। পরে কাছাকাছি শহরতলি লিনউডের মসজিদে হামলা চালানো হয়। তবে দ্বিতীয় মসজিদে হামলাকারী একই ব্যক্তি কি না, তা এখনো নিশ্চিত করা হয়নি। হামলায় আল নূর মসজিদে ৪১ জন এবং লিনউড এলাকার অন্য মসজিদে হামলায় ৮ জন নিহত হয়েছেন।

এ ঘটনায় শোক প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী আরডের্ন বলেন, “এটা নিউজিল্যান্ডের অন্ধকারতম দিনগুলোর একটি। এখানে যে ঘটনা ঘটেছে সেটা পরিষ্কারভাবেই অস্বাভাবিক এবং অপ্রত্যাশিত নৃশংসতা।”

হামলায় জড়িত সন্দেহে আটক এক ব্যক্তি অস্ট্রেলিয়ার নাগরিক বলে নিশ্চিত করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন। তিনি বলেন, সন্দেহভাজন হামলাকারী ‘একজন চরম ডানপন্থি নৃশংস সন্ত্রাসী’।

আল নূর মসজিদে হামলাকারী তার হেলমেটে বসানো ক্যামেরায় গুলি চালানোর পুরো দৃশ্য সরাসরি সম্প্রচার করেছেন। প্রায় ১৭ মিনিটের ওই লাইভে অটোমেটিক রাইফেলধারী ওই ব্যক্তি নিজের নাম বলেছেন ‘ব্রেন্টন ট্যারেন্ট’। ২৮ বছর বয়সের শ্বেতাঙ্গ ওই হামলাকারীর জন্ম অস্ট্রেলিয়ায়। iqna

নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য: