IQNA

19:55 - July 11, 2019
1
সংবাদ: 2608880
ইসলামী পর্যটনকে বিশ্ব বাণিজ্যের ব্র্যান্ড হিসেবে গড়ে তুলতে সুনির্দিষ্ট রোডম্যাপ প্রণয়ন করার ব্যাপারে গুরুত্বারোপ করেছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বার্তা সংস্থা ইকনা'র রিপোর্ট: আজ (বৃহস্পতিবার) সকালে রাজধানীর হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালে 'ঢাকা দ্য ওআইসি সিটি অব ট্যুরিজম' এর উদযাপন অনুষ্ঠানের উদ্বোধনী পর্বে তিনি এ কথা বলেন ।

গত বছর ওআইসিভুক্ত দেশগুলোর পর্যটনমন্ত্রীদের দশম সম্মেলনে ২০১৯ সালের জন্য ঢাকাকে “ওআইসি সিটি অব ট্যুরিজম” হিসেবে ঘোষণা করা হয়। তারই ধারাবাহিকতায়, আজ ঢাকায় শুরু হয়েছে দু’দিনব্যাপি উদযাপন অনুষ্ঠান। ওআইসি’র সহকারী সেক্রেটারি মুসা কুলাকলিকায়াসহ ৩০টি ওআইসি সদস্য দেশের প্রতিনিধিগণ এতে অংশ নেন। অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওআইসির দেশগুলোকে নিজেদের সমস্যায় এক হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।

এ সময় শেখ হাসিনা উল্লেখ করেন, বিভিন্ন দেশে জাতীয় আয়ে পর্যটন শিল্প ভূমিকা রাখছে। তাই বাংলাদেশেও পর্যটক আকর্ষণে নানা উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। তাছাড়া, আন্তঃওআইসি পর্যটক প্রবাহ বাড়াতে বিনিয়োগ বৃদ্ধি, ভিসা সহজীকরণ ও নতুন নতুন ব্রান্ডিংএর ওপরও গুরুত্বারোপ করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, 'সমগ্র দেশে আজ পর্যটন একটা দ্রুত বর্ধনশীল খাত হিসেবে স্বীকৃতি অর্জন করেছে। বিশ্ব ভ্রমণ ও পর্যটন খাত তথ্যমতে সব দেশেই জাতীয় আয় পর্যটন ভূমিকা রেখে যাচ্ছে। ওআইসিভুক্ত দেশগুলোর পর্যটকদের জন্য কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে আলাদা জোন করার কথাও জানান প্রধানমন্ত্রী।

এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ ট্যুর আপারেটরস এসোসিয়েশনের সভাপতি জনাব তৌফিক উদ্দীন আহমেদ রেডিও তেহরানকে বলেন, বাংলাদেশে পর্যটক আকর্ষণের জন্য এ খাতে বিনিয়োগ বাড়াতে হবে। তাছাড়া, মধ্যপ্রাচ্যের পর্যটকগণ যারা বোম্বে, থাইল্যান্ড, ব্যাংকক বা মালয়েশিয়া যায় তাদের বাংলাদেশে আনতে হলে তারা যে বিষয় আকর্ষণ বোধ করে সে রকম সুবিধা দিতে হবে ।

পাশের দেশ ভারতের উদাহরণ দিয়ে জনাব তৌফিক উদ্দীন আহমেদ বলেন, বাংলাদেশকে পর্যটক আকর্ষণের জন্য রোড শো করতে হবে এবং বিদেশে পর্যটন মেলায় এখানকার ট্যুর অপারেরেটরদের পাঠাতে হবে। এ কাজটা সরকারী অফিসারদের দিয়ে হবে না।

এদিকে আজ ঢাকায় ওআইসি পর্যটন নগরী শীর্ষক সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঢাকার ইতিহাস-ঐতিহ্যের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেছেন, রাজধানী হিসেবে ঢাকায় রয়েছে চারশো বছরের পুরোনো ইতিহাস আর ঐতিহ্য। চারপাশে ছড়িয়ে থাকা নানা পুরাকীর্তি আর প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন দেখতে প্রতিদিনই ভিড় জমান বিভিন্ন দেশ থেকে আসা পর্যটকরা। পর্যটন ব্যবসায় বিশ্ব যখন এগিয়ে চলেছে, তখন বাংলাদেশও ক্রমেই এর মুসলিম ঐতিহ্য আর নিজস্ব প্রাকৃতিক সম্ভার নিয়ে মাথা তুলে দাঁড়াতে চায়। পার্সটুডে

প্রকাশিত: 1
পর্যালোচনা করা হচ্ছে: 0
প্রকাশযোগ্য নয়: 0
girsegmc
0
0
20
নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য: