IQNA

23:58 - October 16, 2019
সংবাদ: 2609449
আন্তর্জাতিক ডেস্ক: মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, তুরস্কের বিরুদ্ধে তার প্রশাসন বড় ধরনের নিষেধাজ্ঞা আরোপ করবে। সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে কুর্দি গেরিলাদের বিরুদ্ধে তুরস্ক সামরিক অভিযান শুরু করার পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট এই ঘোষণা দিলেন।

বার্তা সংস্থা ইকনা'র রিপোর্ট: ডোনাল্ড ট্রাম্প সোমবার এক টুইটার বার্তায় বলেন, অভিযান শুরুর পর কুর্দিরা সম্ভবত সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশের কিছু বন্দিকে মুক্তি দিয়েছে যাতে আমেরিকা এই সংঘাতে জড়িয়ে পড়ে। ট্রাম্প তা টুইটার বার্তায় বলেন, “তুরস্কের বিরুদ্ধে বড় নিষেধাজ্ঞা আসছে। অনেকে মনে করে যে, আমরা ন্যাটো সদস্যের বিরুদ্ধে যুদ্ধে জড়িয়ে পড়বো কিন্তু তা নয় বরং সীমাহীন যুদ্ধের অবসান হবে।”

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, “আমরা আরো একটি যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ছি না, যেখানে ২০০ বছর ধরে লোকজন একে অপরের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে।” তিনি বলেন, কুর্দিরা হয়তো দায়েশের কিছু বন্দীকে ছেড়ে দিয়ে থাকতে পারে। এ অবস্থায় তুরস্কের এবং ইউরোপের দেশগুলোর উচিত ছিল দায়েশের বন্দীদেরকে গ্রহণ করা কিন্তু তারা তা করলো না।”

গত বুধবার থেকে তুরস্ক সিরিয়ার বিরুদ্ধে সামরিক অভিযান শুরু করেছে। অভিযান শুরুর পরপরই মার্কিন সিনেটরদের একটি দল সিনেটর একটি প্রস্তাব এনেছে যাতে বলা হয়েছে, এরদোগান এবং তুরস্কের অন্য নেতাদের সমস্ত সম্পদ বাজেয়াপ্ত করতে হবে। পাশাপাশি সিরিয়া থেকে তুর্কি সেনা প্রত্যাহার না করা পর্যন্ত তুরস্কের এসব নেতার বিরুদ্ধে ভিসা নিষেধাজ্ঞা জারি রাখতে হবে।

এছাড়া যেসব প্রতিষ্ঠান তুরস্কের সামরিক বাহিনীর সঙ্গে সম্পর্ক রাখবে এবং অভ্যন্তরীণভাবে তুরস্কের সামরিক বাহিনীকে জ্বালানি সরবরাহ করবে তাদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপের প্রস্তাব করা হয়েছে।   iqna

নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য: