IQNA

15:21 - May 14, 2020
সংবাদ: 2610780
তেহরান (ইকনা): ১৯শে রমজান মসজিদের ভিতরে আব্দুর রহমান বিন মুলজাম মুরাদী বিষাক্ত তলোয়ার দিয়ে ইমাম আলী (আ.)এর অবস্থায় মাথায় আঘাত করে। ফজরের নামাজের জন্য ইমাম আলী (আ.) মসজিদে কুফা প্রবেশ করেন এবং সেখানে নামাজ পড়তে দাঁড়ান এবং ইমাম যখন সিজদায় যান ইবনে মুলজাম তাঁর মাথায় আঘাত করে।

অপর দিকে এই রজনী হচ্ছে পবিত্র লাইলাতুল কদরের প্রথম রজনী। পবিত্র রমজান মাসের শেষের দশ দিনের বেজোড় রাতগুলোর যে কোন এক দিন হচ্ছে লাইলাতুল কদর।

লাইলাতুল কদরের অর্থ অতিশয় সম্মানিত ও মহিমান্বিত রাত বা পবিত্র রজনী। আরবি ভাষায় ‘লাইলাতুল’ অর্থ হলো রাত্রি বা রজনী এবং ‘কদর’ শব্দের অর্থ সম্মান, মর্যাদা, মহাসম্মান। এ ছাড়া এর অন্য অর্থ হচ্ছে; ভাগ্য, পরিমাণ ও তাকদির নির্ধারণ করা।

পবিত্র এই দিনে মসজিদে কুফায় একই সাথে ইমাম (আ.)এর আঘাত প্রাপ্তির দিন এবং লাইলাতুল কদরের অনুষ্ঠান পালিত হয়েছে।

এই দিনে মসজিদে কুফায় মুসল্লিগণ উপস্থিত হয়ে ইমাম আলী (আ.)এর স্মরণে শোকানুষ্ঠন পালন করেন এবং লাইলাতুল কদরের আমল করেন।

করোনার বিস্তার রোধে সমাবেশে নিষেধাজ্ঞার জন্য ইরাকি সরকারের অনুরোধের প্রতিক্রিয়া হিসাবে, মসজিদটির ব্যবস্থাপনায় অল্প সংখ্যক মুসল্লি ও আহলে বায়েত প্রেমীদের উপস্থিতিতে এই ধর্মীয় অনুষ্ঠান পরিচালিত হয়।

অবশ্য শনিবার মসজিদের পরিচালনা কমিটি এক বিবৃতি পেশ করার মাধ্যমে ১৯শে রমজান এই মসজিদ বন্ধের ঘোষণা দিয়ে সকলে আহলে বায়েত (আ.)এর ভক্ত নিকট ক্ষমা প্রার্থনা করেছেন।

এছাড়াও, নাজাফ প্রদেশের করোনা অফ দ্য প্রিভেনশন কমিটি গত বৃহস্পতিবার ঘোষণা করেছে যে, মাওলা আলী ইবনে আবু তালিবের (আ.) শাহাদাত বার্ষিকী এবং ঈদুল ফিতরের দিনে নাজাফে আশরাফে অবস্থিত ইমাম আলী (আ.)এর পবিত্র মাযার বন্ধ থাকবে। iqna

নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য:
* captcha: