IQNA

21:22 - August 01, 2020
সংবাদ: 2611246
তেহরান (ইকনা): করোনা মহামারির বাস্তবতায় পুরোপুরি অচেনা রূপে বুধবার শুরু হয় পবিত্র হজের আনুষ্ঠানিকতা। যেখানে প্রথমবারের মতো অন্য দেশ থেকে হজ পালনে সৌদি আরব যেতে পারছেন না ধর্মপ্রাণ মুসলিমরা।

এবারের হজে শুধু তাঁরাই অংশ নিতে পারছেন, যাঁরা সৌদি আরবে অবস্থান করছেন। সৌদি আরবের নাগরিক ও বর্তমানে সেখানে অবস্থান করা অন্য দেশের নাগরিকসহ মোট এক হাজার ভাগ্যবান মানুষ এবার হজে অংশ নিয়েছেন। ‘লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক, লাব্বাইক লা শারিকা লাকা লাব্বাইক, ইন্নাল হামদা, ওয়াননিমাতা লাকা ওয়ালমুলক, লা শারিকা লাকা’ (আমি হাজির, হে আল্লাহ আমি হাজির, তোমার কোনো শরিক নেই, সব প্রশংসা ও নিয়ামত শুধু তোমারই, সব সাম্রাজ্যও তোমার) ধ্বনিতে আজ সারাদিন মুখর থাকবে আরাফাতের ময়দান।

 

বৃহস্পতিবার পালিত হয়েছে পবিত্র হজের মূল আনুষ্ঠানিকতা। হাজিরা সূর্যোদয় থেকে সূর্যাস্ত পর্যন্ত আরাফাতের ময়দানে অবস্থান করেছেন। আরাফাতের ময়দানে উপস্থিত হওয়া হজের অন্যতম ফরজ। এসময় তারা সূর্যাস্ত পর্যন্ত ঐতিহাসিক এই ময়দানে অবস্থান করে আল্লাহর জিকিরসহ অন্যান্য ইবাদতে মশগুল ছিলেন।


হজ চলাকালে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ যাতে না ছড়ায়, সে লক্ষ্যে বিভিন্ন সতর্কতামূলক পদক্ষেপ নিয়েছে সৌদি সরকার। পর্যাপ্ত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পাশাপাশি বিনা অনুমতিতে মক্কা ও এর আশপাশের এলাকায় প্রবেশে কড়া নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে। যাঁরা ২০ জুলাই থেকে ২ আগস্ট পর্যন্ত বিনা অনুমতিতে হজের রোকন অঞ্চলে প্রবেশ করবেন, তাঁদের জন্য ১০ হাজার রিয়াল জরিমানার বিধান করা হয়েছে। একাধিকবার প্রবেশ করলে এ জরিমানা দ্বিগুণ হবেও বলে জানিয়েছে দেশটির দায়িত্বশীল প্রশাসন। iqna

 

 

 

নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য:
* captcha: