IQNA

23:07 - December 09, 2017
সংবাদ: 2604516
আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ইরাকের আনবার প্রদেশে ওয়েস্ট লিবারেশন অপারেশন কমান্ডার আব্দুল আমির রশিদ ইয়ারুল্লাহ আজকে (৯ম ডিসেম্বর) ঘোষণা করেছেন: ইরাকের ভূমি থেকে তাণ্ডব সৃষ্টিকারী বিশ্বের সর্বকালের ‘বর্বরতম’ জঙ্গিগোষ্ঠী দায়েশ তথা ইসলামিক স্টেটকে (আইএস) উচ্ছেদ করা হয়েছে।

ইরাক এখন দায়েশ মুক্ত

 

বার্তা সংস্থা ইকনা: আব্দুল আমির রশিদ ইয়ারুল্লাহ এ ব্যাপারে বলেন: ইরাকের আনবার প্রদেশের পশ্চিমে 90 টি গ্রাম ও 16 হাজার বর্গ কিলোমিটার জমি দায়েশ মুক্ত করা হয়েছে। দায়েশকে পরাজিত করে ইরাকের মাটি দায়েশ মুক্ত করা হয়েছে।
তিনি বলেন: এই সাফল্য ইরাকি সেনাবাহিনী এবং জনপ্রিয় স্বেচ্ছাসেবী বাহিনী বাসীজীর সহযোগিতায় সম্ভব হয়েছে। বর্তমানে ইরাক ও সিরিয়ার সীমান্তবর্তী অঞ্চল নিরাপত্তা বাহিনীর নিয়ন্ত্রণাধীন রয়েছে।
এদিকে ইরাকি প্রধানমন্ত্রী হায়দার আল-আবাদি আজ এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, ইরাক-সিরিয়া সীমান্ত এখন পুরাপুরি ইরাকি সেনাদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। সিরিয়ার রাকা থেকে উৎখাত হওয়ার পর সীমান্তের কয়েকটি আস্তানা ধরে রেখেছিল জঙ্গিরা, সেসব স্থান থেকেও তাদের হটিয়ে দেওয়া হয়েছে।
উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে ইরাক ও সিরিয়ার বিশাল অঞ্চল দখল করে রাকাকে রাজধানী উল্লেখ করে খিলাফত ঘোষণা করে আইএসের নেতা আবু বরক আল-বাগদাদি। প্রায় ১ কোটি লোকের ওপর নিয়ন্ত্রণ নিয়ে তাদের বিরুদ্ধে ব্যাপক দমন-পীড়ন ও জুলুম চালায় জঙ্গিরা। ইরাক ও সিরিয়ার ঐতিহ্যবাহী ও ঐতিহাসিক বহু স্থাপনা ধ্বংস করেছে। দলে দলে মানুষ মেরে গণকরব দিয়েছে। নারী, শিশু কেউ-ই তাদের নির্যাতনের হাত থেকে রক্ষা পায়নি। অসংখ্য নারীকে যৌনদাসী বানিয়ে কালোবাজারে বিক্রি করেছে আইএস।
আইএসের দখল করা শক্তিশালী ঘাঁটি ছিল ইরাকের মসুল ও সিরিয়ার রাকা। জুলাই মাসে মসুল থেকে জঙ্গিদের উৎখাত করে ইরাকি বাহিনী। এ অভিযানে বিমান হামলার মাধ্যমে তাদের সাহায্য করে যুক্তরাষ্ট্র। আর সিরিয়ার সরকারি বাহিনী, রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের যৌথ হামলায় নভেম্বর মাসে রাকা ছেড়ে পালায় আইএস সদস্যরা।

iqna

নাম:
ই-মেল:
* আপনার মন্তব্য:
* captcha: